চাঁদপুরের আলোচিত সাকিব হত্যা মামলায় ইউপি মেম্বার আটক

সুজন পোদ্দার :
চাঁদপুরের কচুয়ায় আলোচিত হত্যা মামলায় আসামী ইউপি সদস্য আলাউদ্দিনকে গ্রেপ্তার করেছে জেলা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। রোববার ভোর রাতে কচুয়ার সেগুয়া গ্রামের তার নিজ বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।
২০২০ সালে কচুয়ায় আইসক্রিম তৈরির একটি কারখানার শ্রমিক মো. সাকিব হত্যা মামলার আসামি তিনি। গ্রেপ্তার হওয়া মো. আলাউদ্দিনকে বোরবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

মামলার সূত্রে জানা গেছে, ঘটনার শিকার মো. সাকিব (১৭) এবং মামুন হোসেন (২০) নামের দু’জন পালাখাল বাজারে ইউপি সদস্য মো. আলাউদ্দিনের মালিকানাধীন আইসক্রিম তৈরির ফ্যাক্টরিতে কাজ করত। গত বছরের ৮ ফেব্রæয়ারি দুপুরে অসুস্থ অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পর মো. সাকিবকে মৃত ঘোষণা করেন জরুরি বিভাগের চিকিৎসক। এই ঘটনায় তখন কচুয়া থানায় একটি ইউডি মামলা হলেও পরে মৃত মো. সাকিবের বাবা কচুয়া উপজেলা ডুমুরিয়া গ্রামের হালিম প্রধানীয়া বাদী হয়ে মামুন হোসেন ও মো. আলাউদ্দিনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এদিকে থানা পুলিশ মো. সাকিবের মৃত্যুর ঘটনার কোনো কিনারা করতে না পারায় পুলিশ হেড কোয়ার্টারের নির্দেশে স¤প্রতি এই মামলাটি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন-পিবিআইয়ের কাছে হন্তান্তর করা হয়। পরবর্তীতে পিবিআই, চাঁদপুর জোনের প্রধান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জুনায়েদ কাউছার মামলাটি উপ-পরিদর্শক মো. শরীফ উল্লাহকে তদন্ত করার দায়িত্ব দেন। সেই প্রেক্ষিতে মামলার তদন্তের এক পর্যায়ে রোববার ভোর রাতে পুলিশ পরিদর্শক মাহবুবুর রহমানের নেতৃত্বে উপ-পরিদর্শক আমির মীর এবং মামলার তদন্ত কর্মকর্তা অভিযান চালিয়ে কচুয়ার সেগুয়া গ্রাম থেকে ইউপি সদস্য মো. আলাউদ্দিনকে গ্রেপ্তার করে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. শরীফউল্লাহ জানান, এই মামলার প্রধান আসামি পলাতক মামুন হোসেনকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। অন্যদিকে গ্রেপ্তার হওয়া ইউপি সদস্য মো. আলাউদ্দিনকে রোববার দুপুরে আদালতে হাজির করা হয়। পরে আদালতের নির্দেশে তাকে জেলহাজতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

নিহত সাকিবের বাবা হালিম প্রধানীয়া জানায়, অবশেষে দীর্ঘ ১৮ মাসপর আমার ছেলের হত্যা মামলার আসামি আলাউদ্দিন মেম্বার গ্রেফতার হওয়ায় আল্লাহর দরবারে শুকরিয়া জানাচ্ছি। বাকী আসামীকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে ফাঁসির রায় কার্যাক্রম করার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

০১৭১৬৫১৯৫৪১ (বার্তা বিভাগ)