চাঁদপুরের মনোনয়ন বাতিল হওয়া প্রার্থীদের আপিল : বৈধ ২ প্রার্থীর বিরুদ্ধে আপত্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক :
চাঁদপুরের ৫টি আসনে মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া ১১ প্রার্থী নির্বাচন কমিশনে আপিল করেছেন তাদের মনোনয়নপত্রের বৈধতা পেতে। অন্যদিকে জেলা রিটার্নিং অফিসার কর্তৃক বৈধ ঘোষিত ২ প্রার্থীর বিরুদ্ধে আপত্তি করেছেন প্রতিদ্বন্দ্বি অন্য প্রার্থী। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

চাঁদপুর-১ (কচুয়া) আসনে ৫জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। এরা হলেন- ১% ভোটার তালিকায় গড়মিল থাকায় স্বতন্ত্র প্রার্থী গোলাম হোসেন, মোঃ মোহাম্মদ রাহাদ চৌধুরী, মোহাম্মদ শওকত হোসেন মিয়া। প্রস্তাবকারী ও সমর্থনকারী অন্য জেলার ভোটার হওয়ায় বাংলাদেশ কংগ্রেসের মোঃ জামাল হোসেন এবং হলফনামায় স্বাক্ষর না থাকায় বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্টের মো. সেলিম প্রধান।

চাঁদপুর-২ (মতলব উত্তর ও মতলব দক্ষিণ) আসনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের সময় উপস্থিত না থাকায় বাংলাদেশ মুসলিম লীগের মোঃ শাহ আলম সরকারের মনোনয়ন বাতিল করা হয়।

চাঁদপুর-৩ (সদর ও হাইমচর) আসনের কারো মনোনয়নপত্র বাতিল হয়নি।

চাঁদপুর-৪ (ফরিদগঞ্জ) আসনে মনোনয়নপত্র বাতিল প্রার্থীরা হলেন- জাতীয় পার্টির সাজ্জাদ রশিদ ও তৃণমূল বিএনপির মোহাম্মদ সেলিম।

চাঁদপুর-৫ (শাহারাস্তি ও হাজীগঞ্জ) আসনে মনোনয়নপত্র বাতিল প্রার্থীরা হলেন- ১% ভোটারের তথ্যে গড়মিল থাকায় স্বতন্ত্র মোঃ জাকির হোসেন প্রধানীয়া, উপস্থিত না থাকায় জাসদের মো. মনির হোসেন মজুমদার ও মামলার তথ্য গোপন রাখায় বাংলাদেশ সংস্কৃতিক মুক্তিজোটের আখতার হোসেন।

এদিকে রিটার্নিং অফিসার কর্তৃক বৈধ ঘোষণার পরও প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীরা চাঁদপুর-৪ (ফরিদগঞ্জ) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী সিআইপি জালাল আহমেদ ও চাঁদপুর-৫ (শাহারাস্তি ও হাজীগঞ্জ) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী গাজী মাইনুদ্দিনের বিষয়ে নির্বাচন কমিশনে আপিল করা হয়েছে।

অন্যদিকে গতকাল রোববার (১০ ডিসেম্বর) থেকে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে আপিল শুনানি শুরু হয়। আগামী ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত আপিলের শুনানি চলবে।

শেয়ার করুন