চাঁদপুরে করোনায় আক্রান্ত ৫ হাজার ছাড়ালো : জেলা লকডাউন বিষয়ে বৃহস্পতিবার সিদ্ধান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক :
চাঁদপুর জেলায় করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ও শতকরা বেড়েই চলছে। বুধবার জেলায় ৯৪জনের নমুনা পরীক্ষা ১৯জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ দিন জেলায় করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার ছাড়িয়েছে। সাম্প্রতিক সময়ে করোনায় আক্রান্ত রোগী শনাক্ত বেড়ে যাওয়ায় এ নিয়ে চিন্তিত স্বাস্থ্যবিভাগসহ বিভিন্ন মহল। এমন পরিস্থিতিতে আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে ভার্চুয়ালি জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির এক গুরুত্বপূর্ণ সভা অনুষ্ঠিত হবে। সভায় করোনার সর্বশেষ পরিস্থিতি পর্যালোচনা ও জেলা লকডাউন বিষয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত হতে পারে।

স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুরে বুধবার (১৬ জুন) আরো ১৯জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে চাঁদপুর সদর উপজেলার ৭জন, ফরিদগঞ্জের ৪জন, শাহরাস্তির ৪জন, মতলব দক্ষিণের ২জন, হাজীগঞ্জের ১জন ও লক্ষ্মীপুরের ১জন রয়েছেন। একই দিনে ১৫জনকে করোনামুক্ত ঘোষণা করা হয়েছে। এর মধ্যে চাঁদপুর সদর উপজেলার ৯জন, হাইমচরের ২জন, মতলব দক্ষিণের ৩জন ও হাজীগঞ্জের ১জন।

সূত্র আরো জানায়, নতুন আক্রান্তসহ জেলায় করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫০০৯জন। এর মধ্যে মৃতের সংখ্যা ১২৩জন। সুস্থ হয়েছেন ৪৬১৪জন। বর্তমানে চিকিৎসাধীন ২৭২জন। আক্রান্তদের মধ্যে চাঁদপুর সদর হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন ১৬জন। বাকীরা হোম আইসোলেশনে আছেন। সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। সূত্র জানায়, বুধবার জেলার ৯৪জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। রাতে প্রাপ্ত রিপোর্ট অনুযায়ী ১৯জন করোনা পজেটিভ।

সিভিল সার্জন ডা. সাখাওয়াত উল্লাহ বুধবার রাতে চাঁদপুর প্রবাহকে জানান, করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আমরা উদ্বিগ্ন। বিশেষ করে গত কয়েকদিন ধরে আক্রান্তের হার বেশি। এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির এক গুরুত্বপূর্ণ সভা ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হবে। সভায় করোনার সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা ও জেলায় লকডাউন বিষয়ে সিদ্ধান্ত হতে পারে। তবে সারা দেশে লকডাউন চলমান থাকায় জেলায় কঠোর লকডাউনের পরিস্থিতি এখনো হয়নি বলে মন্তব্য করেন জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের এই শীর্ষ কর্মকর্তা। তবে লকডাউন বিষয়ে জেলা কমিটি সিদ্ধান্ত গ্রহণের এখতিয়ার রাখেন বলে স্মরণ করিয়ে দেন তিনি।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।