চাঁদপুর শহরে তুচ্ছ ঘটনায় হামলার পর বৃদ্ধের মৃত্যু

শাওন পাটওয়ারী :

চাঁদপুর শহরের বড়স্টেশন যমুনা রোড নদীরপাড় এলাকায় বাপ-মেয়ের ঝড়াকে কেন্দ্র করে প্রতিবেশীর হামলায় আহত বৃদ্ধ নাছির হাওলাদার (৬৫) মারা গেছেন। এ নিয়ে এলাকায় পরস্পরবিরোধী বক্তব্য পাওয়া গেছে। কেউ কেউ বলছেন, হামলার শিকার হয়ে তিনি মারা গেছেন। আবার অন্যরা বলছেন, মেয়ের সাথে ঝগড়ার পরদিন তার বার্ধক্যজনিত কারণে মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে।

শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় নাছির হাওলাদার নিজ বাড়িতে মারা যান। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আসিফ মহিউদ্দিন,সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আব্দুর রশিদ।

নিহত নছির হাওলাদারেরর স্ত্রী শুভতারা জানান, শুক্রবার রাত ১১টায় বড় মেয়ে জোনাকি বেগমের সাথে জেলে কার্ডের চাল ভাগাভাগি নিয়ে বাপ-মেয়ের বাকবিতন্ডা হয়। পরে পার্শ্ববর্তী প্রতিবেশি বিল্লাল প্রধানিয়া ও বাদশা প্রধানিয়াসহ তাদের স্ত্রীরা বাপ-মেয়ের ঝগড়া থামানোর চেষ্টা করে। ঝগড়া থামানোর এক পর্যায়ে তারা নিহত নছির হাওলাদারের উপর চড়াও হয়। তারা নছির হাওলাদারকে মারধর করে। শনিবার সকাল থেকেই নাছির হাওলাদারের শারীরিক অবস্থা খারাপ হতে থাকে। দুপুরের পর তিনি বমি করেন। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় তিনি মৃতুবরণ করেন।

এ ব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আসিফ মহিউদ্দিন জানান, নাছির হাওলাদার নামে এক ব্যক্তির তার মেয়ের সাথে ঝগড়া হয়। পরে পাড়া-প্রতিবেশিদের সাথে ঝগড়াটি ছড়িয়ে যায়। শনিবার দুপুরে তিনি অসুস্থ বোধ করেন, সন্ধ্যায় তিনি মারা যান।  আমরা স্বাক্ষীদের সাথে কথা বলে যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে যাচাই-বাছাই করে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আব্দুর রশিদ জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য থানায় নেয়া হচ্ছে। বিষয়টি তদন্ত করছে পুলিশ।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।