চিকিৎসা করতে যেয়ে লাশ হয়ে ফিরলো মতলবের এক বাড়ির ৩জন

নিজস্ব প্রতিনিধি :
কুমিল্লায় চিকিৎসা করতে যেয়ে লাশ হয়ে ফিরেছেন মতলবের মা-ছেলেসহ ৩জন। গুরতর আহত হয়েছেন আরো ৩জন। রোববার (১৮ অক্টোবর) বিকেল ৫টার দিকে কুমিল্লার লালমাই হাইওয়ে এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন জাহানারা বেগম (৭০), তার ছেলে শরীফ সরকার (৩৫) ও একই বাড়ির হাজেরা বেগম (৫৫)। তাদের বাড়ি চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণ উপজেলার কাশিমপুর এলাকায়।

নিহতের স্বজনরা জানান, রোববার সকালে ভালো ডাক্তার দেখাতে তারা ৬জন কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যান। ডাক্তার দেখানোর পর বিকেল ৫টায় সিএনজিযোগে কুমিল্লা বাস স্ট্যান্ডে ফেরার পথে লালমাই হাইওয়ে এলাকায় আসলে বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রুতগামী সিএনজির সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

এতে ঘটনাস্থলেই জাহানারা বেগম, তার ছেলে শরীফ ও সাথে থাকা একই বাড়ির হাজেরা বেগম মারা যায়। আহত হয় শরীফের স্ত্রী উম্মে হানি, মেয়ে নিহা আক্তার ও তার ভাতিজা আল-আমিন।

স্থানীয় লোকজন আহতদেরকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করায়। খবর পেয়ে লালমাই হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। ওইদিন রাতেই স্বজনদের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হয়। সোমবার সকালে গ্রামের বাড়িতে নিহতদের মৃতদেহ দাফন করা হয়। এ ঘটনায় ওই এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

আহত আল-আমিন জানান, তারা ডাক্তার দেখানোর পর সিএনজিতে করে ফেরার পথে লালমাই হাইওয়ে এলাকায় বিপরীত দিক থেকে আসা একটি সিএনজি রং সাইডে এসে পড়লে মুখোমুখি সংঘর্ষের সৃষ্টি হয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনজন মারা যায়।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।