পরীক্ষা দিতে গিয়ে লাশ হয়ে বাড়ি ফিরলেন বিপাশা

খান মোহাম্মদ কামাল :
চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার জমিলা খাতুন উচ্চ বিদ্যালয়ের মেঘনা-ধনাগোদা বেড়ি বাঁধ পাকা সড়কে অটোরিক্সার ধাক্কায় ষষ্ঠ শ্রেণির এক শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে।

নিহত শিশুর নাম ইশরাত আরা ওরফে বিপাশা (১১)। নিহত বিপাশা উপজেলার সুলতানবাদ ইউনিয়নের ছোট লক্ষ্মীপুর গ্রামের প্রবাসী সালাউদ্দিন (বাবুল) খলিফার একমাত্র মেয়ে।

বিপাশা মতলব উত্তর উপজেলার ১০নং ফতেপুর পূর্ব ইউনিয়নের এনায়েতনগর অবস্থিত জমিলা খাতুন উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়ত। বুধবার সে তার ইতিহাস ও সামাজিক বিজ্ঞান বিষয়ে পরীক্ষা দিতে বাসা থেকে বের হয়ে তার আর বাড়ি ফেরা হলো না। ফিরেছে তার নিথর মরদেহ।

বুধবার (২২ নভেম্বর) সকাল সোয়া ৯টার দিকে জমিলা খাতুন উচ্চ বিদ্যালয়ের মেঘনা-ধনাগোদা বেড়ি বাঁধ পাকা সড়কে দুর্ঘটনাটি ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে মতলব দক্ষিণ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে তার অবস্থা আশঙ্কজনক দেখে তাকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে রেফার করা হয়।

পরে তাকে ঢাকা নিয়ে যাওয়ার পথে দাউদকান্দি যাওয়া পথে তার অবস্থা আরো অবনতি হলে দাউদকান্দি বলদা খাল ডিকে হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় পুলিশ অটোরিক্সাসহ চালক টিটুকে আটক করেছে। দুর্ঘটনার পর ক্ষুব্ধ লোকজন অটোরিক্সাটি আটক করে। তারা কিছু সময় রাস্তা বন্ধ করে রাখেন। খবর পেয়ে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে অটোরিক্সাসহ এর চালক টিটুকে আটক করেছে।

অটোচালকের গ্রামের বাড়ি একই উপজেলার সুলতানাবাদ ইউনিয়নের দক্ষিণ শিবপুরে। অটোবাইক চালক টিটু ও অটোবাইকটি পুলিশ হেফাজতে আছে।

শেয়ার করুন