মতলবে বৃদ্ধার গলাকাটা লাশ উদ্ধার : আটক ১

তালহা জুবায়ের :
মতলব দক্ষিণ উপজেলায় সামছুন্নাহার (৬৫) নামের এক বৃদ্ধার গলা কাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলার বাইশপুর এলাকা থেকে এই মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে রাতে পুলিশ মৃত বৃদ্ধার ভাইয়ের ছেলে পারভেজ নামের এক যুবককে আটক করেছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, শামসুন্নাহার তার স্বামীকে নিয়ে বাপের বাড়িতে থাকতো। ঘটনার দিন নিহতের স্বামী আব্দুর রাজ্জাক ক্যান্সারের চিকিৎসার জন্য ঢাকায় অবস্থান করছিলেন। এদিকে ওই দিনই নিহতের ছোট ভাই মৃত বোরহান উদ্দিন মুন্সির ছেলে পারভেজ তার ফুফুর সাথে দেখা করার জন্য সকালে বাড়িতে আসে।

এক পর্যায়ে পারভেজ তার ফুফু শামসুন্নাহারের সাথে ঝগড়া করে বাড়ি থেকে চলে যায়। এরপর সামছুন্নাহারের কোন দেখা পাওয়া যায়নি। সন্ধ্যার সময় হাঁস-মুরগী ঘরে নেওয়ার জন্য সামছুন্নাহারকে ডাকতে গিয়ে তার ঘরের দরজা বন্ধ পেয়ে তা ভেঙে ঘরের ভেতর গলাকাটা লাশ দেখতে পায়। বিষয়টি থানায় জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (মতলব সার্কেল) মোঃ আহসান হাবীব, জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজী আঃ রহিম। এদিকে মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ এর অনুরোধে টিবিআই ইন্সপেক্টর মোঃ বাচ্চুর নেতৃত্বে চৌকস দল ঘটনাস্থলে এসে বিভিন্ন আলামত জব্দ করেন। পরে ঘটনার সাথে সম্পৃক্ততার পারভেজকে আটক করা হয়েছে। গৃহবধূ পারভেজের ফুফু হয়। তার বাড়িও বাইশপুরে।

মতলব দক্ষিণ থানার ওসি স্বপন কুমার আইচ বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ সাথে সাথে ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে। ধারালো কোন অস্ত্র দিয়ে তাকে খুন করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে, দুপুরের কোন এক সময় এই হত্যাকান্ড ঘটে থাকতে পারে। এই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে রাতে মতলব ব্রীজের কাছ থেকে অভিযুক্ত পারভেজকে আটক করা হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে হত্যাকান্ডের কারণ জানা যাবে। এই ঘটনায় থানায় হত্যা মামলা দায়েরের পাশাপাশি মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য চাঁদপুরে মর্গে পাঠানো হবে বলে জানান তিনি।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন