চাঁদপুরে বিআরটিসি বাস সাইড দিতে গিয়ে খালে সুরমা বাস, আহত ১০ যাত্রী

সুজন পোদ্দার :
চাঁদপুরের কচুয়ায় রোববার সাড়ে ১২টার দিকে গৌরিপুর-কচুয়া সড়কের ঘাগড়া নামক স্থানে ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা যাত্রীবাহী সুরমা (ঢাকা মেট্টো ঘ ৫৪৬৩) নম্বরের বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পাশ্ববর্তী খালে পড়ে যায়। এতে অন্তত ১০জন যাত্রী আহত হয়েছে।

আহতদের মধ্যে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নেয় উপজেলার নলুয়া গ্রামের জসিম উদ্দিনের মেয়ে ইসরাত (৭), তোয়াবপুর গ্রামের তোয়াব আলীর ছেলে আবুল বাসার (৬০), পিলগিরি গ্রামের ইয়াসিনের স্ত্রী খাদিজা (৩১), কালচোঁ গ্রামের সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে মোস্তফা কামাল (৬২), হোমনা থানা লতিয়া গ্রামের জামাল উদ্দিনের ছেলে নাছির উদ্দিন (২০) ও অলি উল্লাহ ছেলে সালাউদ্দিন (২২)। বাকীরা স্থানীয় ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা নেয়।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ঢাকা থেকে ছেড়ে সুমরা বাস ঘাগড়া নামক স্থানে পৌঁছলে বিপরীত মুখী রামগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা বিআরটিসি বাসটিকে সাইড দিতে গিয়ে সুরমা বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খালে পড়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা স্থানীয়দের সহযোগিতায় ঘটনাস্থলে পৌঁছে বাসে আটককে পড়া ২০-২৫জন যাত্রীকে উদ্ধার করে। আহত ১০জনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে।

এ রোডের সুরমা বাস চালক সুমন ও আবু মিয়া জানান, বিআরটিসি বাসের চালকরা এই রোডে চলাচলকারী সুরমা বাসসহ বিভিন্ন গাড়ীকে দেখামাত্র পুরো রাস্তা দখল করে চাপ দেয়। এতে সাইড নিতে গিয়ে বিভিন্ন সময় দুর্ঘটনার কবলে পড়তে হচ্ছে বাসগুলোকে। তারা একরোখা হয়ে সড়কে বাস চালিয়ে আসছে। প্রতিবাদ জানালে তারা সরকারি বাসের চালক বলে হুমকি দেয়।

কচুয়া সুরমা বাস মালিক সমিতির সভাপতি আব্দুস সালাম সওদাগর জানান, বিআরটিসি বাস এই রাস্তায় চলাচলের পর থেকেই আমাদের সুরমা বাস ঘন ঘন দুর্ঘটনার কবলিত হচ্ছে। বিশেষ করে তাদের বাসগুলো আমাদের বাসগুলোর তুলনায় বড় হওয়ায় বিভিন্ন মোড়ে সাইট দিতে গিয়ে প্রায় দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে। অচিরেই বিআরটিসি বাস সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনায় বসবো।

কচুয়া উপজেলা ফায়ার স্টেশন কর্মকর্তা মো. রুবেল মিয়া জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে আটকে পরা যাত্রীকে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের অ্যাম্বুলেন্স যোগে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পৌঁছে দেই।

কচুয়া থানার ওসি মো. মহিউদ্দিন জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ফোর্স পাঠিয়েছি। বাসের ভিতরে আটকেপড়া যাত্রীদের উদ্ধার করা হয়েছে। কেউ হতাহত হয়নি। বাসটি খাল থেকে তোলার কার্যক্রম চলছে। গাড়ির চালক ও হেলপার পলাতক রয়েছে।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন